100+রুদ্র মুহম্মদ শহীদুল্লাহ উক্তি ও প্রেমের কবিতা

রুদ্র মুহম্মদ শহীদুল্লাহ। বিপল্ব এবং প্রেম এর কবিতার আরেক সমার্থক। গান ও রচনায় তার অবদান কবিতার চেয়ে কম নয়। আজকে আমরা রুদ্র মুহম্মদ শহীদুল্লাহ এর কিছু সেরা কবিতা, উক্তি ও বিদ্রোহী কিছু প্রকাশ  নিয়ে এসেছি যে গুলো সবার অনেক প্রিয়। আসা করি সম্পূর্ণ পরে, তার শেরা কিছু উক্তি ও কবিতা পাবেন।

রুদ্র মুহম্মদ শহীদুল্লাহ উক্তি

রুদ্র মুহম্মদ শহীদুল্লাহ উক্তি অনেক জনপ্রিয় উক্তি। আমারা সবাই তার উক্তি গুলা অনেক পছন্দ করি। আজেকে আমরা আদের ব্লগ পোষ্ট টিতে রুদ্র মুহম্মদ শহীদুল্লাহ এর কিছু সেরা উক্তি  নিয়ে আসেছি।

যতো দূরে ইচ্ছে হয় যাও,

বিশ্বাসী স্বপ্নের কাছে জেনে নেবো সঠিক ঠিকানা।

চোখের দিকে তাকিয়ে থাকতে থাকতে আর দিগন্ত দ্যাখা হয় ন,

এতো চোখ! এতো এতো চোখের দিকে তাকিয়ে থাকতে হয় প্রতিদিন। -আত্ম-দর্শন

খোলা জানালায় দাঁড়ালে, বাইরে চোখ,

জোয়ারে ভাটায় বহমান নদী পাশে।

ঝাঁপিয়ে পড়েছে হাওয়ার পংগপাল

তোমার দেহের সবুজ শস্য ক্ষেতে। _নারী ও নদীর গল্প

কিছু দীর্ঘশ্বাস জমা হয়ে থাকবে বুকে

কিছু অশ্রু থেমে থাকবে চোখের নিকটে

ঝরাবে না শিশির।

তুমি রেশমী হাতে বুলোতে পরশ

রাত্রি নিশ্চুপ হেঁটে যেতো শরীর বেয়ে ।

চোখ কেড়েছে চোখ উড়িয়ে দিলাম ঝরা পাতার শোক।

আমারও ইচ্ছে করে ঝড়ের সন্ধায়,

অন্য কোনো তরুনীর হাত ধ’রে সুদূরে হারাই,

বৃষ্টি ও বাতাসে মেলি যুগল ডানার স্বপ্ন।

আমারও ইচ্ছে করে ফুটে থাকি অসংখ্য শিমুল। _শোধবোধ

ভালবাসার সময় তো নেই

ব্যস্ত ভীষন কাজে,

হাত রেখো না বুকের গাঢ় ভাজে।

এসো না হয় কিছুক্ষন বসি

শিয়রের খোলা জানালায়,

কিছুক্ষন ভুলে থাকি পৃথিবীর

মরা আকাশ,, বাতাসের প্রেম।_ কিছুক্ষন ভুলে থাকি

মেয়েটা ভীষন পাজি, বেয়ারা দুচোখ,

অকারনে চারপাশে বেশরম ঝোঁক।

মানুষের মৌলিক মুখোশ আমি খুলতে পারি না,

শুধু পুড়ে যেতে পারি, পুড়ে যাই, পোড়াই সৌরভ,

রাতের আগুন এনে নিবেদিত সকাল পোড়াই।_কাব্যগ্রন্থঃ মৌলিক মুখোশ, ১৯৯০

রুদ্র মুহাম্মদ শহীদুল্লাহ প্রেমের কবিতা

রুদ্র মুহাম্মদ শহীদুল্লাহ প্রেমের কবিতা অনেক জনপ্রিয় তিনি। তার প্রেম এর কবিতা গুলা অনেক মনরম। রুদ্র মুহাম্মদ শহীদুল্লাহ প্রেমের কবিতা উল্লেখ করা হল।

কিছুটাতো চাই_হোক ভুল, হোক মিথ্যে প্রবোধ,

অভিলাষী মন চন্দ্রে না-পাক জোস্নায় পাক সামান্য ঠাঁই,

কিছুটাতো চাই, কিছুটাতো চাই।

কারো জন্যই তো কেউ অপেক্ষা করে না,

যে যার মতোন ব’য়ে যায় তুমিও চলে গেছ রুদ্র

অতোটা প্রেমের প্রয়োজন নেই

ভাষাহীন মুখ নিরীহ জীবন

প্রয়োজন নেই- প্রয়োজন নেই

কিছুটা হিংস্র বিদ্রোহ চাই কিছুটা আঘাত

রক্তে কিছুটা উত্তাপ চাই, উষ্ণতা চাই

চাই কিছু লাল তীব্র আগুন। -অবেলায় শঙ্খধ্বনি

যুবকটি প্রেয়সীকে বললো- তুমি অপূর্ব

মেয়েটি স্পষ্ট জবাব ছুঁড়ে দিলো

কতো টাকা মাইনে পাও শুনি?

আমি কৃষ্ণচুড়াকে প্রেম ভেবে

কোনো এক বসন্তের রাতে

গোপনে বুকে রেখেছিলাম

তখন বসন্ত ছিলো

আমার কোকিল ছিলো।

রাত ঝরে গেছে, দিন মনেও রাখেনি কারো অনাবিল হৃদয়ের ঘ্রান

সভ্যতার বিষাক্ত নিশ্বাস লেগে মানুষ গুটিয়ে গেছে শামুকের মতো।

এতো ছোট হয়ে গেছে আজ মানুষের বিশাল হৃদয়। হায় এতো ছোটো,

নিজের জন্যেও তার অবশিষ্ট এক ফোঁটা জায়গা নেই নিজের হৃদয়ে!

শিমুল শাখারা তবু এতো লাল হয়ে ওঠে আজো,

আজো এতো রক্তময় হৃদয়ের মতো শুষ্ক বাতাসে ছড়ায়

লোহিত সুঘ্রান। -কার্পাশ মেঘের ছায়া_রুদ্র মুহম্মদ শহিদুল্লাহ

আমাকে আজকাল কেউই, কেউই আর ভালোবাসে না।

যে সব প্রেমিকা ছিলো, আগেকার

বাসের হ্যান্ডেল, রেশনের কিউ

হাফসোল জুতোয়, বড়ো আপন ফুটপাথ

ওদের আজকাল নোতুন প্রেমিক

ওরা আমাকে চেনে না এখন

এমন কি ভালোবাসাও

ইদানিং আমাকে আর ভালোবাসে না। -সম্পূর্ন ভালোবাসার অযোগ্য

শেষ কথা

রুদ্র মুহাম্মদ শহীদুল্লাহ প্রেমের কবিতা, রুদ্র মুহাম্মদ শহীদুল্লাহ প্রেমের উক্তি, রুদ্র মুহাম্মদ শহীদুল্লাহ বিদ্রোহী কবিতা, রুদ্র মুহাম্মদ শহীদুল্লাহ উক্তি , কিছু  লেখা নিয়ে আসে ছিলাম। তার এই বিখ্যাত উক্তি,কবিতা গুলা আমারা অনেকে খুজে থাকি আমদের কাছে এই রকম আরও অনেক আপডেট আসবে। নিয়েও মিত অ্যাক্টিভ থাকতে আমদের ওয়েবসাইট এর সাথে থাকুন।

আরও দেখুন,

Leave a Comment